Gadgets

খরগোশের দাম ২০২৩ – খরগোশের বাচ্চার দাম

খরগোশ একটি খুবই সুন্দর এবং কোমল প্রাণী। শখের বসে যত্ন করে অনেকেই খরগোশ পালন করে থাকে। এছাড়াও খরগোশ পালন অনেকেই এটাকে ব্যবসায়ী পরিণত করেছে। তবে যে যেই কারণেই হোক না কেন। বাংলাদেশে অনেক মানুষেই খরগোশ পালন করে থাকে। কেননা এটি দেখতে অনেক সুন্দর এবং কোমল দেহের অধিকারী। যার কারনে হাতের নাগালে পেলে প্রতিটি মানুষই একটিবার ছুঁয়ে দেখতে চাই খরগোশের কোমল শরীর।

তবে বর্তমানে হয়তো আপনারা অনেকে আছেন। যারা খরগোশ কেনার কথা চিন্তা করছেন। তবে দাম না জানার কারণে বা খরগোশের জাত সম্পর্কে না জানার কারণে বিভিন্ন দ্বিধায় ভুগছেন। তাই আপনাদের সুবিধার জন্য আমরা এই আর্টিকেলে খরগোশের দাম সম্পর্কে আলোচনা করেছি‌। আপনারা খরগোশের সঠিক দাম সম্পর্কে জানতে পারবেন এবং নির্দিষ্ট দামে খরগোশ কিনতে পারবেন বলে মনে করা যাচ্ছে। তাই খরগোশের দাম গুলো জানতে আমাদের সম্পূর্ণ আর্টিকেলটা মনোযোগ পরুন।

খরগোশের দাম:

খরগোশ বিভিন্ন সাইজের হয়ে থাকে। যেমন বাচ্চা এবং বয়স্ক দামটাও সে ক্ষেত্রে একটু কম বেশি হয়ে থাকে। তাই আপনি যদি একেবারে বাচ্চা খরগোশ নিতে চান সেক্ষেত্রে আপনি প্রতি চোরাই ৩০০ টাকা থেকে ৫০০ টাকার মধ্যেই পেয়ে যাবেন এবং আপনি যদি বয়স্ক খরগোশগুলো নিতে চান। সেই ক্ষেত্রে এর থেকে কিছু পরিমাণ দাম বৃদ্ধি পাবে। তাই আপনি যদি একটি বয়স্ক খরগোশ ক্রয় করতে চান। 

সেক্ষেত্রে ১ হাজার টাকা থেকে ১২০০ টাকার প্রয়োজন হবে। কেননা আপনি বয়স্ক খরগোশ নিয়ে পরবর্তীতে প্রজননের মাধ্যমে বাচ্চা তোলাতে পারবেন যা আপনার জন্য খুবই লাভজনক। সাধারণত খরগোশের দাম এই অনুসারেই বয়স্ক খরগোশের দাম বেশি হয়ে থাকে।

খরগোশ কিভাবে পালন করা হয়:

খরগোশ সাধারণত আপনারা দুইটি উপায়ে পালন করতে পারবেন। একটি হল খাচায় আরেকটি হল খোলাস স্থানে। এই দুই ভাবে আপনারা খরগোশের পালন করতে পারবেন। একটি বর খাচায় খরগোশ পোষা সহজ। তবে খাঁচায় খরগোশ পোষার চাইতে মাটিতে কিংবা গোলা স্থানে খরগোশ পোষা বেশ ভালো কারণ গর্ভ চলাফেলার জন্য একটি বড় জায়গার প্রয়োজন হয় আর সেই বড় জায়গাটি কখনো ই খাঁচার ভেতরে গিয়ে পৌঁছাবে না যার কারণে বড় জায়গার প্রয়োজন।

এছাড়াও বাচ্চা প্রজননের সময় খরগোশ মাটির গভীরে গিয়ে বাচ্চা প্রজনন করে। যার কারণে খাচায় কোনভাবেই তারা বাচ্চা প্রজনন করতে পারবে না। সে ক্ষেত্রে তার মাটির প্রয়োজন খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

খরগোশ কোথায় পাওয়া যায়: আমরা প্রায় সময় লক্ষ্য করে থাকি বিভিন্ন দোকানে পাখি বিক্রি করে থাকে। এই সমস্ত দোকানগুলোতে সন্ধান করলে আপনি অবশ্যই খরগোশের সন্ধান পেয়ে যাবেন। এছাড়া নানান বাড়িতে খরগোশ পালন করে থাকে।  যাদের মাধ্যমে খুব সহজেই আপনি খরগোশ কিনতে পারবেন। তবে আপনাকে সঠিক জায়গায় যেতে হবে বা সন্ধান করে বের করতে হবে কোন জায়গায় খরগোশ বিক্রি হয়।

খরগোশের খাবার: খরগোশের খাবার নিয়ে আপনাকে কোন রকম চিন্তা করতে হবে না কেননা খুব সহজেই আপনি খরগোশের খাবার সংগ্রহ করতে পারবেন। সাধারণত আমরা ছাগলদের যে সমস্ত খাবার দিয়ে থাকি এই সমস্ত খাবারই খরগোশের বেশি পছন্দের। তার ভিতরে উল্লেখযোগ্য কাঁচা ঘাস ,শাকসবজি, ফল ,খড়কুটো ,এ সমস্ত খাবারই দেয়া হয় খরগোশকে। তাই খাবার নিয়ে কোন রকম বাড়তি চিন্তা ভাবনার কোন দরকার পড়ে না খরগোশ পালনকারীদের।

খরগোশ পালনে সাবধানতা: আপনারা যারা খরগোশ পালনের চিন্তা করেছেন। তাদেরকে খুবই সতর্কতার সাথে খরগোশ পালন করতে হবে। যেমন কোন রকম সাঁতস্যাঁতে পরিবেশ কিংবা অতিরিক্ত রোদ এই সমস্ত জায়গা গুলো থেকে খরগোশকে নিরাপদে রাখবেন। কেননা খরগোশের জন্য স্বেচ্ছায় থেকে কিংবা অতিরিক্ততা খুবই ক্ষতিকর।

এছাড়াও বেশিরভাগ খরগোশ মারা যায় শীতের কারণে। যার কারণে শীতকালে খরগোশকে প্রচুর পরিমাণ গরম জায়গায় রাখার প্রয়োজন যাতে করে কোন রকম শীত না লাগে তো আশা করা যায় আপনারা এতক্ষণে খরগোশের দাম। এবং খরগোশের সম্পর্কে বিস্তারিত ভাবে জানতে পেরেছেন তাই খরগোশ কিনতে কিংবা খরগোশ পালনে কোন অজানা কাছে বলে মনে হয় না। আপনারা আমাদের আর্টিকেল প্রকাশিত অনুযায়ী খরগোশের পরিচর্যা করতে পারবেন।

Related Articles

Back to top button
Close